ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০২১,

আবু হানিফ রানা:

বৈশ্বিক মহামারি করোনার সংক্রমণ রোধে সীমিত পরিসরে অষ্টম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন করেছে দৈনিক আমার সংবাদ। দেশের প্রথম সারির এ দৈনিকের নবম বছরে পদার্পণ উপলক্ষে গতকাল শুক্রবার (১২ ফেব্রুয়ারি) সকাল থেকে রাত পর্যন্ত মতিঝিলের নিজস্ব কার্যালয় ভরে উঠে ফুলে ফুলে। করোনার স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক দূরত্ব মেনে প্রধান অতিথি ও প্রতিষ্ঠানের সাংবাদিক, কর্মকর্তা-কর্মচারী  এবং সংশ্লিষ্ট সবাইকে সাথে নিয়ে কেক কাটেন আমার সংবাদ সম্পাদক হাশেম রেজা।

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে উপস্থিত প্রতিষ্ঠানের সংশ্লিষ্ট সবাই দৈনিক আমার সংবাদকে কোটি প্রাণের দোরগোড়ায় পৌঁছে নেয়ার অঙ্গীকার করেন। এ সময় তারা বলেন, প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই দৈনিক আমার সংবাদ তথ্যনির্ভর ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন করে আসছে। দেশ ও জাতির বিকাশে আগামীতে এই ধারা অব্যাহত থাকবে।

‘নির্ভীক সাহসিকতার হবে না শেষ, আমরা গড়বো দুর্নীতিমুক্ত বাংলাদেশ’ এই স্লোগানকে সামনে রেখে ২০১২ সালের ১২ ফেব্রুয়ারি প্রথম যাত্রা শুরু হয় ঢাকা থেকে প্রকাশিত বহুল প্রচারিত জাতীয় দৈনিক আমার সংবাদ পত্রিকার। সৃজনশীল ও বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতার মাধ্যমে দেশের ভাবমূর্তি সমুন্নত রাখার প্রতিপাদ্যকে ধারণ করে হাঁটি হাঁটি পা পা করে মাত্র আট বছরে মানুষের মন জয় করে ‘আমার সংবাদ’ অল্প সময়ে কোটি মানুষের হৃদয় জয় করে নবম বর্ষে পদার্পণ করলো।

শুক্রবার আমার সংবাদের প্রধান কার্যালয়ে কেক কাটা ও আনন্দ ভাগাভাগির মধ্য দিয়ে উদযাপিত হয় পুরো দিনটি। প্রতি বছর দৈনিকের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে দেশের নানা শ্রেণিপেশার মানুষের পদচারণায় মুখর হয় আমার সংবাদ কার্যালয়। কিন্তু এবার বৈশ্বিক মহামারি করোনার কারণে কিছুটা ঘরোয়া পরিবেশে বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠান উদযাপন করা হয়। দৈনিক আমার সংবাদের নবম বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠানে ঢাকা রেঞ্জের ডিআইজি হাবিবুর রহমানকে সাথে নিয়ে প্রথম কেক কাটেন সম্পাদক হাশেম রেজা। এরপর একেক করে সাংবাদিক, বার্তা বিভাগ, অনলাইন বিভাগ, মার্কেটিং বিভাগ ও সার্কুলেশন বিভাগের সাথে আলাদা আলাদাভাবে কেক কাটেন তিনি।

অষ্টম বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠানে  তথ্যনির্ভর ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন ও প্রকাশের মধ্য দিয়ে দৈনিক আমার সংবাদ পত্রিকা দেশের কোটি মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছানোর অঙ্গীকার করেন সম্পাদক, সাংবাদিক, বার্তা বিভাগ, অনলাইন বিভাগ, মার্কেটিং বিভাগ, সার্কুলেশন বিভাগসহ সংশ্লিষ্টরা। বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠানে তারা বলেন, লাখো শহীদের রক্তের বিনিময়ে অর্জিত বাংলাদেশে আমার সংবাদ সবসময় তথ্যনির্ভর ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন করে আসছে। তুলে ধরছে সমাজের অবহেলিত, নির্যাতিত ও সুবিধাবঞ্চিত মানুষের কথা। দুর্নীতি, সন্ত্রাস, মাদক, চাঁদাবাজি  ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে অবিচল লেখনীর পাশাপাশি প্রতিদিন আমার সংবাদে তুলে ধরে দেশের চলমান উন্নয়নের গল্প। বিগত দিনের সেই ধারাবাহিকতার পাশাপাশি তথ্যনির্ভর ও বস্তুনিষ্ঠ  সংবাদ প্রকাশের মধ্য দিয়ে নতুন বছরে দেশের কোটি প্রাণের দোরগোড়ায় পৌঁছাতে অঙ্গীকার করেন দৈনিক আমার সংবাদ পরিবারের সদস্যরা।

দৈনিক আমার সংবাদ পত্রিকায় নবম বর্ষে পদার্পণ উপলক্ষে কেক কাটা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ঢাকা রেঞ্জের ডিআইজি হাবিবুর রহমান বলেন, ‘দেশের সুসম্পাদিত পত্রিকার একটি হলো আমার সংবাদ। আমার সংবাদের প্রতিনিধিরা সবসময় স্বাধীনতার পক্ষে সংবাদ পরিবেশন করেন। আমি যে কয়টি পত্রিকা পাঠ করি তার মধ্যে আমার সংবাদ অন্যতম। আমি যতটুকু জানি, আমার সংবাদ প্রথম সারিতে রয়েছে। দেখতে দেখতে নবম বছরে পা দিলো শীর্ষস্থানীয় এই পত্রিকাটি। প্রকৃত তথ্য উদঘাটন করতে তারা আরও বেশি বস্তুনিষ্ঠ ও সাহসী হবে এই প্রত্যাশা করি।’ ডিআইজি হাবিবুর রহমান আরও বলেন, ‘সাংবাদিকতা একটি মহান পেশা। প্রতিটি সাংবাদিক এই সমাজের চোখ। সাংবাদিক ও সংবাদপত্রের গুরুত্ব অনেক।’

তিনি বলেন, ‘সাংবাদিকতার ধারা কিন্তু বদলে গেছে। সমাজের পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে প্রতিটি সাংবাদিকদের আধুনিক চিন্তা-চেতনা ধারণ করতে হবে। সাংবাদিকতার সিমাবদ্ধতা কতটুকু, সে বিষয়ে সঠিক জ্ঞানার্জন এবং তথ্যনির্ভর  ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন করতে হবে। তা হলে যেকোনো সমস্যার সমাধান দ্রুত হবে। একই সাথে প্রতিটি পাঠক সংবাদপত্র ও সাংবাদিকদের ওপর পূর্ণ আস্থা ফিরে পাবে।’ অনুষ্ঠানে আমার সংবাদ পত্রিকার সাথে জড়িত সকলকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানান তিনি।

আমার সংবাদ সম্পাদক হাশেম রেজা বলেন, ‘স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্ব ও মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের নির্ভুল খবর প্রকাশে সাহসিকতায় স্বীয় অবস্থান নিশ্চিত করে প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনার বাংলাদেশ বিনির্মাণে যাত্রা অব্যাহত রেখেছে আমার সংবাদ। সামনের দিনগুলোতে বাংলার ইতিবাচক খবর আমরা ছড়িয়ে দিতে চাই বিশ্বব্যাপী। সৃজনশীল ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশের মধ্যদিয়ে পৌঁছে যেতে চাই কোটি মানুষের দোরগোড়ায়। আশা করি বস্তুনিষ্ঠ, নিরপেক্ষ সংবাদ পরিবেশনের মাধ্যমে আমার সংবাদ ইতোমধ্যে যে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে, তা ভবিষ্যতেও অক্ষ‍ুণ্ণ থাকবে। আমার সংবাদ তার অভীষ্ট লক্ষ্যে চলার চেষ্টা অব্যাহত রেখেছে। এ চেষ্টা আগামী দিনেও অব্যাহত থাকবে। পেশাদারিত্ব বজায় রেখে মানুষের আরও কাছে পৌঁছবে আমার সংবাদ।’

দেশের কোটি মানুষের দোরগোড়ায় দৈনিক আমার সংবাদ পৌঁছে দেয়া হবে উল্লেখ্য করে তিনি আরও বলেন, ‘শুরু থেকেই আমার সংবাদ সবসময় তথ্যবহুল সংবাদ পরিবেশন করে আসছে। ফলে অতি অল্প সময়ে দেশের গণমাধ্যম জগতে আলোড়ন সৃষ্টি করেছে। সঠিক সংবাদ পরিবেশন করায় প্রতিটি পাঠকের আস্থা অর্জন করতে পেরেছে। যেকোনো মূল্যে এই অগ্রগতি ধরে রাখার পাশাপাশি আরও এগিয়ে যেতে হবে।’

হাশেম রেজা বলেন, ‘সাংবাদিকরা একটি সংবাদপত্রের প্রাণ। তাদের নিখুঁত লেখনীর মাধ্যমে সংবাদপত্র এগিয়ে যায়। তাই প্রতিটি সাংবাদিককে সাহসিকতার সাথে সত্য সংবাদ প্রকাশ করতে হবে। কোনো অনিয়ম ও দুর্নীতির সাথে আপস নয়, তাদের বিরুদ্ধে কলম দিয়ে সংগ্রাম করতে হবে।’

দেশব্যাপী পালন করা হয় দৈনিক আমার সংবাদ পত্রিকার অষ্টম প্রতিষ্ঠাবাষির্কী। দৈনিক আমার সংবাদের স্থানীয় প্রতিনিধিরা নিজ নিজ উদ্যোগে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন করেন। এতে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় বিভিন্ন শ্রেণিপেশার মানুষ। এদিকে দৈনিক আমার সংবাদ পত্রিকার অষ্টম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন রাজনৈতিক, সাংস্কৃতিকসহ দেশের শীর্ষস্থানীয় বিভিন্ন শ্রেণিপেশার মানুষ।

www.bbcsangbad24.com

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here