এপ্রিল,২৩,২০২১

নিজস্ব প্রতিনিধি:

মুন্সীগঞ্জে প্রকাশ্যে গৃহবধুকে শীলতাহানির অভিযোগ ইউপি চেয়াম্যানের ভাইয়ের বিরুদ্ধে

নিজস্ব প্রতিনিধি:

২৩ এপ্রিল সকাল ১০ টার পর মুন্সীগঞ্জ সদর থানার শিলই ইউনিয়নের পূর্ব রাখিরকান্দি এলাকায় গৃহবধুকে শীলতাহানী ও মারধর করেছে বর্তমান শিলই ইউপির চেয়ারম্যান ও আওয়ামীলীগের সভাপতি আবুল হাসেম লিটনের ছোট ভাই সাবেক মেম্বার ইসমাইল হোসেন।

জানাযায়,শিলই ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ড উত্তরকান্দি গ্রামের আবু বেপারীর স্ত্রী হামিদা বেগম দিঘিরপাড় বাজারে সাপ্তাহিক গরুর হাটে গরু কিনতে ছেলেকে নিয়ে যায় এবং ২টি গরু কিনে ছেলেকে দিয়ে পাঠিয়ে দিয়ে হামিদা কেনাকাটা করার জন্য বাজারে থেকে যায়। গরু দুইটি নিয়ে শিলই ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবুল হাসেম লিটনের ছোটভাই ইসমাইল হোসেনের বাড়ি পূর্ব রাখিরকান্দি এসে গরু নিয়ে অপেক্ষা করতে থাকলে এসময় তার বাড়ির পাশের গাছে গরু বেধে রাখার অপরাধে ইসমাইল মেম্বার তাকে বেদম প্রহার করে । এসময় হামিদা বেগম বাজার থেকে এসে দেখে তার ছেলেকে মারধর করছে ইসমাইল মেম্বার তখন সে ছুটাতে গেলে তাকেও মারধর করে একপর্যায়ে হামিদা বেগমকে শত শত লোকের সামনে প্রকাশ্যে দিবলোকে বিবস্ত্র করে শীলতাহানি করে ইসমাইল মেম্বার । ইসমাইল মেম্বার বর্তমান চেয়াম্যানের ভাই ও প্রভাবশালী হওয়ায় কেউ তার ভয়ে প্রতিবাদ করতে সাহস পায়নি।

এবিষয়ে হামিদা বেগম বলেন, আমি এলাকার গণ্যমান্যদের কাছে বিচারের জন্য গেলে তারা আমাকে চেয়ারম্যানকে জানাতে বলে ,পরে আমি চেয়ারম্যানকে জানালে তিনি আমার বিষয়টিকে গুরুত্ব না দিয়ে তার ভাইয়র পক্ষ নিয়া বলেন তার ভাই কোন অপরাধ করেনি। তাই আমি ন্যায় বিচারের লক্ষে বিষয়টি মুন্সীগঞ্জ থানা পুলিশকে অবগত করেছি। বর্তমানে মামলা প্রস্তুতি চলছে।

www.bbcsangbad24.com