আগস্ট,১২,২০২১

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি: 

মুন্সীগঞ্জ থানাধীন মোল্লাকান্দি ইউনিয়নের মধ্য মাকুহাটি মাঝি বাড়ির আলমগীর মাঝি পিছনে  পুকুরের কুচুরিপানার নিচেমাইনুদ্দীন মাঝির ছেলে জুবায়ের হোসেন (৭), গলায় পাটের রশি প্যাচানো অবস্থায় এর লাশ পাওয়া যায় গত ৯ আগস্ট রাত অনুমান ১০ টার সময়।

মৃতের মা জারমিন বেগম জানায় তার ছেলে ৯ আগস্ট সন্ধ্যার সময় প্রতিবেশী রত্নার নিকট পড়তে যায় এবং সে ঘুমিয়ে যায়। পরবর্তীতে একই তারিখ রাত অনুমান সাড়ে ৯টার সময় তার ছেলে কে না দেখে খোঁজাখুঁজির একপর্যায়ে পুকুরের কচুরিপানা নিচে শিশু লাশ পাওয়া যায়। ধারণা করা হচ্ছে যে অজ্ঞাতনামা ব্যক্তি বা ব্যক্তিরা শিশু কে পাটের রশি দিয়ে গলায় শ্বাসরোদ্ধ করে হত্যা করে পুকুরের কচুরিপানার নিচে লাশ লুকিয়ে রাখে ।

উক্ত ঘটনায় মৃতের বাবা বাদী হয়ে মুন্সিগঞ্জ  থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন যাহা মুন্সিগঞ্জ থানার মামলা নং ১৯, তাং-১০/০৮/২১ খ্রিঃ ধারা-৩০২/২০১/৩৪ পেনাল কোড। উক্ত মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মামলার মূল রহস্য উদঘাটন পূর্বক ঘটনায় জড়িত আসামি ইমন মাঝি (২২), পিতা- মহিউদ্দিন মাঝি,  সাং- মধ্যম মাকহাটি, থানা+জেলা- মুন্সীগঞ্জ কে  ১০ আগস্ট  গ্রেফতার পূর্বক বিজ্ঞ আদালতে প্রেরণ করা হয়।

গ্রেফতারকৃত আসামি ঘটনার বিষয় আদালতে ম্যাজিস্ট্রেট এর নিকট  সিআরসিসি ১৬৪ ধারা মোতাবেক দোষ স্বীকারোক্তিমূলক  জবানবন্দি প্রদান করেন। মুন্সীগঞ্জ থানার অভিযোগপত্র নং ৪৩৭, তাং-১১/০৮/২১ খ্রিঃ ধারা ৩০২/২০১ পেনাল কোড

মুন্সীগঞ্জ সদর থানার ওসি আবু বকর ছিদ্দিক বলেন, হত্যা  মামলায় চব্বিশ ঘন্টায় বিজ্ঞ আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়েছে।

www.bbcsangbad24.com