আগস্ট,৩০,২০২১

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি:

সারা বিশ্বের ন্যায় মুন্সীগঞ্জের সকল সনাতন ধর্মের পরিবারে পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণের জন্মাষ্টমী উৎসব পালন করা হয়েছে। সোমবার (৩০আগষ্ট) সকাল থেকে সারাদিনব্যাপি এ জন্মাষ্টমী পালন করা হবে। জন্মাষ্টমী সনাতন ধর্মের পরিবারের কাছে একটি বিশেষ দিন। এদিন পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণকে গোপাল রূপে পুজো করা হয়। হিন্দু ধর্মে এই দিনটির তাৎপর্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ভগবান শ্রীকৃষ্ণের জন্ম হয়েছিল ভাদ্র মাসের কৃষ্ণ পক্ষের অষ্টমী তিথিতে। রোহিনী নক্ষত্রে শ্রী কৃষ্ণের জন্ম হওয়ায় এই বিশেষ দিনটিতে তাঁর জন্মদিন হিসেবে পালিত হয়। অষ্টমী তিথিতে জন্ম হওয়ায় এই দিনটিকে জন্মাষ্টমী হিসেবে বলা হয়েছে। এই বিশেষ দিনে রোহিনী নক্ষত্র শুরু হয়েছে সকাল ৬টা ৩৯ মিনিটে।

সোমবার ৩০ আগষ্ট ভোর থেকেই তিথি শুরু হয়েছে যা শেষ হচ্ছে ৩১ আগষ্ট মঙ্গলবার সকাল ৯টা ৪৪ মিনিটে। অষ্টমী তিথি শেষ হচ্ছে সোমবার রাত ১ টা ৫৯ মিনিটে। রোহিনী নক্ষত্রের উপস্থিতিতেই এই পুজো শুভ। তার মাঝেও পঞ্জিকা অনুযায়ী সোমবার বেলা ১১টা ৫৯ মিনিট থেকে ১২টা ৪৪ মিনিট পর্যন্ত থাকছে শুভ যোগ। তবে মঙ্গলবার সকাল ৯টা বেজে ৪৪ মিনিট পর্যন্ত এই ব্রত পালন করা হবে।

এ ব্যাপারে মুন্সীগঞ্জ জেলা হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি ও মুন্সীগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি এডভোকেট অজয় চক্রবর্তী বলেন, এদিন পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণকে গোপাল রূপে পুজো করা হয়। ভগবান শ্রীকৃষ্ণের জন্ম হয়েছিল ভাদ্র মাসের কৃষ্ণ পক্ষের অষ্টমী তিথিতে। ফুল ফল ও তালের পিঠা দিয়ে পুজার্চনার মাধ্যমে পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণের জন্মাষ্টমী পালন করা হয়। প্রতি বছর জাকজমকপুর্ন ভাবে দিনটি পালন করা হলেও এ বছর করোনা ভাইরাসের সংক্রমনের কারনে সিমিত পরিসরে এ দিনটি পালন করা হচ্ছে। আমি এদিনে দেশ বাসী সকলের মঙ্গল কামনা করি।

www.bbcsangbad24.com