দেশ ও মানুষের কথা বলে

সিরাজদিখানে চুরির মামলায় জেলে থেকে জামিনে বেরিয়ে এসে হামলা, আহত ২

ফেব্রুয়ারী,২৪,২০২২

আরিফ হোসেন হারিছ সিরাজদিখান (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি:

মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখানে চুরির মামলার আসামী জেলে থেকে জামিনে বেরিয়ে এসে হামলা করে ২ জনকে আহত করেছে।উপজেলার বালুচর ইউনিয়নের খাসমহল বালুচর বৃহস্পতিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী সকাল ৯টায় এ ঘটনা ঘটে। একে এম শরিফুল ইসলাম বাদী হয়ে সিরাজদিখান থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

অভিযোগ সুত্রে জানাযায় গত ২১/০২/২০২২ তারিখ আমার ভাই আবুল হোসেন (৫০) বাদী হয়ে সিরাজদিখান থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। যাহার সিরাজদিখান থানার মামলা নং-২১, তাং-২১/০২/২০১ খ্রিঃ, ধারা-১৪৩/৪৪৭/৩২৩/৩০৭/৩৭৯/৫০৬/১১৪ পেনাল। উক্ত মামলার ১নং আসামী অর্থাৎ বিবাদী ১। মোঃ মহসীন (৩৫), পিতা-মৃত ইউনুছ মিয়া, সাং-খাসমহল বালুরচর, থানা-সিরাজদিখান, জেলা-মুন্সীগঞ্জ গত ২২/০২/২০২২ তারিখে বিজ্ঞ আদালত হইতে জামিন লাভ করিয়া আমাদের মামলা উঠিয়ে নেওয়া জন্য হুমকি প্রদান করিয়া আসিতেছে। আমরা মামলা উঠিয়ে নেওয়ার কথা অস্বীকার করিলে বর্ণিত বিবাদী সহ বিবাদী ২। ইব্রাহিম (২০), পিতা-মোঃ হানিফা, ৩। মোঃ হানিফা (৫৬), পিতা-মৃত চান মিয়া, উভয় সাং-খাসমহল বালুরচর, থানা সিরাজদিখান, জেলা-মুন্সীগঞ্জয় সহ অজ্ঞাতনামা ৫/৭ জন নারী ও পুরুষ ইং ২৪/০২/২০২২ তারিখ সকাল অনুমান ০৯.০০ ঘটিকার সময় আমি ও আমার ভাগিনা কামরুল ইসলাম হৃদয় (২৭), ও আমার বড় ভাই আবুল হোসেন (৫০) সিএনজি যোগে মুন্সীগঞ্জ যাওয়ার পথিমধ্যে সিরাজদিখান থানাধীন বুড়িরটেক সাকিনস্থ জনৈক তাজউদ্দিন এর বাড়ির সামনে রাস্তায় পৌঁছামাত্র পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে বেআইনী ভাবে দেশীয় অস্ত্রেশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে ৩নং বিবাদীর প্রকাশ্যে হুকুমে সকল বিবাদীগন আমাদের সিএনজি গতিরোধ করিয়া ১নং বিবাদীর হাতে থাকা দা দিয়া হত্যার উদ্দেশ্যে মাথা লক্ষ্য করিয়া উপর্যুপুরি কোপ মারিলে উক্ত কোপ মাথার উপরে লাগিয়া গুরুতর কাটা রক্তাক্ত জখম হয়। আমার ভাগিনা মাটিতে পড়িয়া গেলে ২নং বিবাদী আমার ভাগিনার মৃত্যু নিশ্চিত করার জন্য তার হাতে থাকা চাপাতি দিয়ে হত্যার উদ্দেশ্যে মাথায় উপর্যুপুরী কোপ মারিয়া মাথার ডান পাশে গুরুতর কাটা রক্তাক্ত জখম করে এবং ১নং বিবাদীর হাতে থাকা দা দিয়া পুনরায় তার মাথায় উপর্যুপুরী কোপ মারিয়া গুরুতর কাটা রক্তাক্ত জখম করে। আমার ভাগিনাকে বাচানোর জন্য আমি । আমার ভাই আবুল হোসেন আগাইয়া গেলে ১নং বিবাদীর হাতে থাকা দা দিয়া হত্যার উদ্দেশ্যে মাথা লক্ষ্য করিয়া কোপ মারিলে উক্ত কোপ মারিলে উক্ত কোপ আমি ডান হাত দিয়া ফিরাইলে ডান হাতের পাতায় লাগিয়া গুরুতর কাটা রক্তাক্ত জখম হয়। ৩নং বিবাদীর হাতে থাকা কাঠের ডাসা দিয়া আমার ভাই আবুল হোসেনকে এলোপাথারি ভাবে কিল ঘুষি লাথি মারিয়া শরীরের বিভিন্ন স্থানে নিলাফুলা জখম করে। আমরা মাটিতে পড়িয়া থাকিলে সকল বিবাদীগন আমাকে এলোপাথারি ভাবে কিল ঘুষি লাথি মারিয়া শরীরের বিভিন্ন স্থানে নিলাফুলা জখম করে। ২নং বিবাদী আমার পকেটে থাকা নগদ ২৫,০০০/- টাকা নিয়া যায়। আমাদের ডাক-চিৎকারে আশ পাশের লোকজন আগাইয়া আসিলে বিবাদীগন আমাদের বিভিন্ন ধরনের ভয়ভীত সহ সুযোগ পাইলে জানে মারিয়া ফেলার হুমকি প্রদান করে। পরবর্তীতে স্থানীয় লোকজনদের সহায়তায় আমরা সিরাজদিখান উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে যাইয়া চিকিৎসার জন্য ভর্তি হয়।

এবিষয়ে সিরাজদিখান থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ বোরহান উদ্দিন জানান অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত সাপেক্ষে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

www.bbcsangbad24.com

Leave A Reply

Your email address will not be published.