দেশ ও মানুষের কথা বলে

মুন্সীগঞ্জে চাঁদাবাজির প্রতিবাদ করায় কলেজ শিক্ষার্থীকে হত্যা করার অভিযোগ

এপ্রিল,১৩,২০২২

তুষার আহাম্মেদ,মুন্সিগঞ্জঃ মুন্সীগঞ্জে চাঁদাবাজির প্রতিবাদ করায় সম্রাট আহম্মেদ ঝলক (২২) নামের এক কলেজ ছাত্রকে হত্যা করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। পরিবারের দাবি তাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। আজ বুধবার সাড়ে ১২ টার দিকে মিরকাদিম পৌর লঞ্চ ঘাট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত সম্রাট আহম্মেদ ঝলক মিরকাদিম পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. লিটন মিয়ার ছেলে। সে সরকারি হরগঙ্গা কলেজের বিবিএ দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী।

স্থানীয়রা জানান, ৩০ দিনের জন্য মিরকাদিম লঞ্চঘাট ইজারা আনে আওলাদ

 নামে এক ব্যক্তি। সম্প্রতি আওলাদ ঘাট ইজারা আনলেও বিভিন্ন পন্যবোঝাই ট্রলার ও জাহাজ থেকে মালামাল উঠানামার জন্য পৌর মেয়রের ছেলে মানিক মিয়ার নেতৃত্বে একটি গ্রুপ শ্রমিকদের কাছ থেকে চাঁদা উত্তোলন করে আসছিলো। এতে শ্রমিকরা পৌর কাউন্সিলর লিটনের কাছে যান।  ঘটনার মিমাংসা করতে বুধবার বেলা ১২ টার দিকে পৌর মেয়রের ছেলেসহ ও তার গ্রুপের লোকজনকে লঞ্চঘাট এলাকায় ডেকে আনেন পৌর কাউন্সিলর।

কথাবার্তার এক পর্যায়ে পৌর কাউন্সিলর লিটনকে ধাক্কা দেন পৌর মেয়রের ছেলে ও তার লোকজন। এতে পৌর কাউন্সিলের ছেলে সম্রাট আহমেদ ঝলক বাবার পাশে গিয়ে দাঁড়ায়। এ সময় কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে মেয়রের ছেলে মানিকের লোকজন বাবার চোখের সামনেই ছেলে সম্রাট আহমেদ ঝলককে ছুরিকাঘাত করে। পরে রক্তাক্ত অবস্থায় তাকে মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে আনা হলে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন।

সদর থানার ইন্সপেক্টর তদন্ত রাজিব খান জানান, ঘটনার খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে ছুটে গেছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে। পুলিশ প্রকৃত ঘটনা জানার চেষ্টা করছে।

www.bbcsangbad24. com

Leave A Reply

Your email address will not be published.