দেশ ও মানুষের কথা বলে

মতলবে বিধবাকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে সবস্ব লুট! অত:পর বিয়ে ও ৯ লক্ষ টাকা আত্মসাৎ

আগস্ট,০৭,২০২২

স্টাফ রিপোটার:

চাঁদপুরের মতলব দক্ষিণ উপজেলার নারায়ণপুরের উত্তর কালিকাপুর গ্রামের বড় বাড়ির মৃত সোনা মিয়ার ছেলে ৩ সন্তানের জনক লম্পট সিকু মিয়া বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে দীর্ঘ ১০ বছর যাবৎ এক বিধবা নারীর সাথে অবৈধ যৌন মিলন করে আসছে।

সূত্রে প্রকাশ, একই গ্রামের মোল্লা বাড়ির মৃত সরাফর আলীর মেয়ে বিধবাকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে ১০ বছর যাবৎ অবৈধ সম্পর্ক গড়ে তুলে ঐ লম্পট সিকু মিয়া, আর ঐ বিধবার কাছ থেকে ব্যবসায়ী কাজের জন্য ধাপে ধাপে এককুনে হাতিয়ে নেয় ৯ লক্ষ টাকা, পরবর্তী সময়ে টাকা নেওয়ার পর ঐ লম্পট সেকু বিধবাকে  এড়িয়ে চলতে থাকলে সে তার পাওয়ানা টাকা ও বিয়ে করার জন্য চাপ দিলে সেকু তাকে ঢাকার মাতুয়াইল এলাকার একটি কাজী অফিসে কিছু সংখ্যক স্বাক্ষীর মোকাবেলায় ৫ লক্ষ টাকা দেন মোহর ধার্য করিয়া বিবাহ করেন ০৯/০২/২০২১ইং তারিখে। বিয়ের পর বেশ কিছুদিন তাদের দাম্পত্য জীবন সুখেই ছিলো, এর পর একদিন ঐ লম্পট সেকু একই এলাকার আরেকটি মহিলার সাথে আবারো পরকিয়ায় জড়িয়ে পরে আর বিধবার মাথে তার বিচ্ছেদ দেখা। গত ২৭ জুলাই রাতে লম্পট সেকুকে অন্য একটি মেয়ের অনৈতিক কার্যকলাপের সময় হাতে ধরে ফেলে তার বিবাহিত স্ত্রী ( বিধবা) আর তখন সেকু তাকে বেদম প্রহার ভিকটিমের ডান চোখের উপর আঘাত করে। ভিকটিম বলেন, সেকু আমাকে বিয়ে করবে বলে ১০টি বছর ঘুরিয়েছে। পরিশেষে ২০২১ সালে বিয়ে করে, কিন্তু সে চরিত্রহীন আমাকে ছাড়াও অন্য মেয়ের সাথে অবৈধ সম্পর্ক গড়ে তুলেছে । এবিষয়ে আমাদের এলাকার বর্তমান উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান ও একধিকবার বিচার করেছেন। । ঐ লম্পট সেকুর আরো অনেক অজানা তথ্য আপনাদের মাঝে তুলে ধরা হবে আগামী সংখ্যায় চোখ রাখুন।
( চলমান)

Leave A Reply

Your email address will not be published.