দেশ ও মানুষের কথা বলে

প্রতিটি গুম খুনের বিচার হবে——হারুন অর রশিদ এমপি

সেপ্টেম্বর,০৩,২০২২

আল-আমিন, নীলফামারীঃ

বিএনপির যুগ্ন মহাসচিব মোঃ হারুন আর রশিদ এমপি বলেছেন আওয়ামী লীগের ১৪ বছরের শাসন আমলে বিএনপির যেসব নেতা-কর্মী হত্যা ও গুমের শিকার হয়েছেন বিএনপি ক্ষমতায় আসলে প্রতিটি গুম ও খুনের বিচার করা হবে। বিরোধীমত দমনের জন্য সরকার নির্বিচারে বিএনপির শত শত কর্মীকে হত্যা ও গুম করেছে। সরকারের সময় আর বেশি নেই পালাবার কোন পথ খুজে পাবেনা।

জনগনের সাথে এ সরকার তামাশা করছে বলে সকল জিনিস পত্রের দাম বাড়িয়ে দিয়েছে কারন তারা জনগনের ভোটে নির্বাচিত সরকার না। জনগনের ভোটে নির্বাচিত নয় বলেই তারা জনগনের দুঃখ দুর্দাশা বুঝে না। আজকে প্রতিটি সেক্টরে তারা দুর্নীতি করে হাজার হাজার কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে।

শনিবার বিকালে জেলার ডোমার উপজেলা বিএনপি ও পৌর বিএনপির আয়োজনে জ¦ালানী তেলের মূল্য বৃদ্ধি ,দ্রব্য মুল্যের সীমাহীন উর্ধ্ধগতি ও ভোলায় ছাত্রদল নেতা নুরে আলম এবং স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা আব্দুর রহিম নিহত হওয়ার প্রতিবাদে জুট মিল মাঠে অনুষ্ঠিত কেন্দ্রিয় কর্মসূচীর আংশ হিসেবে বিরাট বিক্ষোভ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। হারুন অর রশিদ বলেন সরকার শিক্ষা ব্যবস্থাকে ধ্বংস করে দিয়েছেন। আজকে দেশ নেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে মিথ্যা মামলায় জেলে রেখে হাজার হাজার কোটি টাকা যারা বিদেশে পাচার করেছে সেই সব মাদক সম্রাট ক্যাসিনো স¤্রাটকে জেল থেকে বের করে দিচ্ছে। আজ সমগ্র দেশকে মৃত্যুপুরীতে পরিনত করেছে সরকার। রড,সিমেন্টসহ প্রােজনীয় জিনিস পত্রের দাম বাড়িয়ে হাজার হাজার শ্রমিককে বেকার করে দিয়েছে। বিএনপি জাতীয় নির্বাহী কমিটির যুগ্ন মহাসচিব হারুন অর রশিদ আরো বলেন, মেগা প্রকল্পের নামে সরকার হাজার হাজার কেটি টাকা লুটপাট করেছে।

১৪ বছরে ৩০ হাজার কেটি টাকা ঋনের বোঝা করেছেন তারা।দেশে আজ ভয়াবহ অবস্থার কথা উল্লেখ করে তিনি আরো বলেন,সরকার সব ক্ষেত্রে ব্যর্থ হয়েছে। তাই এই সরকারকে অবিলম্বে পদত্যাগ করে র্নিদলীয় তত্বাবধায়ক সরকারের অধিনে নির্বাচন দিতে হবে। বিএনপি নির্বাচন চায় তবে দলীয় সরকারের অধিনে পাতানো নির্বাচনে বিএনপি পা দিবে না। তাই এক দফা দাবী আদায় করে শেথ হাসিনার পদত্যাগের মাধ্যমে র্নিদলীয় নিরপেক্ষ তত্বাবধায়ক সরকারের অধিনে নির্বাচন করতে হবে।

তিনি বলেন বিএনপির লক্ষ লক্ষ নেতা-কর্মীর নামে মিথ্যা মামলা দিয়ে হাজার হাজার নেতা-কর্মীকে জেলে পুরেছে সরকার তিনি বলেন সকল অন্যায়ের বিচার হবে পালাবার কোন পথ খুজে পাবেনা হাসিনা সরকার। বৃষ্টি উপেক্ষা করে হাজার হাজার নেতা-কর্মী জনসভাস্থলে আসার জন্য নেতা-কর্মীদের প্রতি তিনি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

উপজেলা বিএনপির সভাপতি মোঃ রেয়াজুল ইসলাম কালুর সভাপতিত্বে উপজেলা সম্পাদক আখতারুজ্জামান সুমন ও পৌর সম্পাদক মোজাফ্ফর আলীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত জনসভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন রংপুর বিভাগের সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ আব্দুল খালেক,দিনাজপুর পৌর মেয়র সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম,জেলা বিএনপির সভাপতি আ খ ম আলমগীর সরকার,সাধারন সম্পাদক জহুরুল আলম, পৌর বিএনপির সভাপতি আনিছুর রহমান আনু প্রমুখ।

দীর্ঘদিন পর ডোমার উপজেলা বিএনপির জনসভা উপলক্ষে মুষুলধারে বৃষ্টি উপেক্ষা করে দলীয় নেতা-কর্মীরা মিছিল সহকারে জনসভা স্থলে যোগ দেয়। বিকাল তিনটায় জনসভাস্থল কানায় কানায় পুর্ন হয়ে যায়। বৃষ্টি উপেক্ষা করে নেতা-কর্মীরা নেতার বক্ত্য শুনার জন্য শ্লোগানে শ্লোগানে সমাবেশস্থলকে পরিপুর্ন করে তুলেন।

www.bbcsangbad24.com

Leave A Reply

Your email address will not be published.